ভ্যালেন্টাইন্স ডের রাতে আবারও আত্মহত্যার ঘটনা মুর্শিদাবাদে। গত মঙ্গলবার রাতে মুর্শিদাবাদ থানার সবজী কাটরা এলাকায় গলায় ওড়নার ফাস লাগিয়ে আত্মহত্যা বছর ১৬ এক কিশোরীর, রাতেই তাকে নিয়ে আসা হয় লালবাগ মহকুম হাসপাতালে সেখানেই চিকিৎসকরা তাকে মৃত বলে ঘোষনা করে। মঙ্গলবার সকালে পিঙ্কী দাসের কাছে একটি ফোন আসে আর তার পর থেকেই সে মোন খারাপ করে বিভিন্ন যায়গায় ছোটা ছূটি করতে থাকে, পিঙ্কীর বাবা সুনিল দাস এক জন টুকটুক চালক, মা বাবলী দাস নার্শিং হোমে কাজ করে সেই কারনে একাই থাকত দুই বোন মিলে বাড়িতে। বাবা সুনিল দাস গাড়ি চালিয়ে বাড়ি এলে জানতে পারে ঘরের ভেতরে মেয়ে গলায় ওড়নার দিয়ে ঝুলছে।
তাকে নিয়ে যাওয়া হয় লালবাগ মহকুমা হাসপাতালে সেখানেই চিকিৎসকরা জানায় পিঙ্কীর মৃত্যুর কথা।  বাবা সুনিল দাস জানালেন আমি কিছু বুঝতে পারে নি। গাড়ি নিয়ে বাড়ি এসে সব জানতে পারি। মেয়েরা একাই থাকত সকালে একটি ফোন পাবার পর ও এই ঘটনা ঘটিয়েছে মেয়ে।